ইসরাইলের প্রতিটি আঘাতের পাল্টা জবাব দেয়া হবে: এরদোগান

ফিলিস্তিনে ইসরাইলের প্রতিটি আঘাতের পাল্টা জবাব দেয়া হবে বলে হুশিয়ারি দিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান। পাশাপাশি ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুকে ‘চোর’ ও ‘ফিলিস্তিনি শিশুদের হত্যাকারী’ বলেও আখ্যায়িত করেন তিনি। তুরস্কের রাজধানী আঙ্কারায় বুধবার এক গণসমাবেশে বক্তৃতাকালে ফিলিস্তিনে নির্যাতনের জন্য ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রীর কঠোর সমালোচনা করেন তিনি। খবর ডেইলি সাবাহ আরবি।

ফিলিস্তিনিদের ওপর চালানো আগ্রাসন বন্ধ করতে ইসরাইলের প্রতি কঠোর হুশিয়ারি উচ্চারণ করে এরদোগান বলেন, ‘নেতানিয়াহু, আপনি নিবৃত্ত হোন। আপনি ওই জালেম, যার হাত ফিলিস্তিনিদের রক্তে রঞ্জিত। সাত বছরের শিশুরাও আপনার হাত থেকে নিরাপদ নয়।’ নেতানিয়াহুর পুরো পরিবার দুর্নীতিগ্রস্ত অভিযোগ করে এরদোগান বলেন, ‘স্ত্রীসহ আপনি দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত। কোন মুখে আপনি দেশ পরিচালনা করছেন।’

আল আকসার ব্যাপারে কোনো ছাড় দেয়া হবে না জানিয়ে মুসলিম বিশ্বের প্রভাবশালী এ নেতা বলেন, ‘কুদসের অধিকার কেউ আমাদের ভুলিয়ে দিতে পারবে না। আল্লাহর সাহায্যে মুসলিম উম্মাহ এ দাবি থেকে কখনো সরবে না। আল আকসায় আর কোনো হামলা সহ্য করা হবে না জানিয়ে এরদোগান বলেন, ‘আমাদের পবিত্র মসজিদের ওপর যে কোনো হামলায় আমরা রুখে দাঁড়াবো। এখন থেকে প্রতিটি আঘাতের পাল্টা জবাব দেয়া হবে।

আল আকসার বিষয়ে সবাই নীরব থাকলেও আমরা নীরব থাকব না।’ ইসরাইলি বাহিনীর হাতে আল আকসা মসজিদ অবরুদ্ধ থাকার পরই ইসরাইলকে এ বিষয়ে কঠিন হুশিয়ারি দিলেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান। মঙ্গলবার সকাল থেকে ইসরাইলি পুলিশ মসজিদটির নিয়ন্ত্রণ নিলে বিক্ষোভে ফেটে পড়ে ফিলিস্তিরা।

এর প্রতিবাদে মসজিদের বিভিন্ন ফটকে দিনভর অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করেন তারা। অব্যাহত বিক্ষোভের মুখে বুধবার সকালে আল আকসার ফটক খুলে দেয় ইসরাইল। বুধবার সকালে মসজিদে ঢুকে কয়েক হাজার ফিলিস্তিনি ফজরের নামাজ আদায় করেন।