মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশীকে নৃশংসভাবে খুন করে ৫ লাখ মালয় রিঙ্গিত ছিনতাই

মালয়েশিয়া প্রবাসী বাংলাদেশী এক ঠিকাদার যুবককে নৃশংসভাবে খুন করে ৫ লাখ মালয় রিঙ্গিত ছিনতাই করেছে রোহিঙ্গারা। সন্ত্রাসী ওই রোহিঙ্গার সঙ্গে দেশীয় এক বন্ধুকেও দায়ী করা হচ্ছে। নিহত ঠিকাদার টেকনাফ সদর গোদার বিলের মো: ইসহাকের পুত্র মুহিবুল্লাহ। একটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের ঢালাইয়ের কাজ চলাকালীন মঙ্গলবার দুপুরে মালয়েশিয়ার এট্টু এলাকায় এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, বাংলাদেশী ঠিকাদার মুহিবুল্লাহ (২০) শ্রমিকদের মজুরী ও নির্মাণ সামগ্রীসহ বিভিন্ন পণ্যের দাম দেয়ার জন্য ব্যাংক থেকে ৫লাখ মালয়েশিয়ার রিঙ্গিত উত্তোলন করে রিঙ্গিতের ব্যাগ সঙ্গে রেখে কাজ তদারকি করছিলেন।

এক ফাঁকে তিনি শ্রমিকদের জন্য পান আনতে রুমে গেলে মালয়েশিয়ায় থাকা রোহিঙ্গা মো: রফিক, হাবিব উল্লাহ ও স্থানীয় জাহালিয়া পাড়ার আব্দুল জলিলের পুত্র বশর মিলে দা-কিরিচ দিয়ে কুপিয়ে অজ্ঞান করে টাকার ব্যাগ নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে লোকজন মুহিবুল্লাহকে রোমে খুঁজতে এসে রক্তাক্ত মৃতদেহ দেখতে পেয়ে মালয়েশিয়ার পুলিশকে খবর দেয়। দেশটির পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায়।